চুল পড়া রোধ করব কিভাবে ?

Please check these topics first.

    1 Subscribers
    Submit Answer
    Please login to submit answer.

    5 Answers
    Sort By:
    0

    আপনি হ্যাভেন হারবাল হেয়ার ট্রিটিমেন্ট ব্যাবহার করে দেখতে পারেন। আমারও পরিচিত অনেককে েরও ব্যাবহার এবং রেজাল্ট পেতে দেখেছি,। আশা করি আপনি উপকার পাবেন।

    Sign in to Reply
    Replying as hasanrang05 Submit
    0

    চিকিৎসা করার আগে অবশ্যই কারণ নির্ণয় করতে হবে।

    অনেক সময় কোনো কারণ খুজে পাওয়া যায় না। তবে নির্দিষ্ট কারণ পাওয়া গেলে সে অনুযায়ী চিকিৎসা করাতে হবে। যদি ফাংগাসের কারণে হয়ে থাকে তবে অ্যান্টিফাংগাল দিতে হবে। যদি অটো ইমিউন রোগে হয়ে থাকে তবে স্টেরয়েড ইনজেকশন দিলে ভালো ফল পাওয়া যায়। ২% মিনোক্সিডিল (MINOXIDIL) Bswjk]
    ব্যবহার করেও আপনি আপনার টাক সমস্যা সমাধান করতে পারেন। এ ওষুধটি শুধু চুল পড়া বন্ধ করে না বরং কিছু নতুন চুল গজাতে সাহায্য করে। ওষুধ দিনে দুবার ব্যবহার করতে হয়। তবে এর প্রধান সমস্যা হলো মাথার সামনের অংশে এটা তুলনামূলক কম কাজ করে। যদিও এ স্থানের টাক পুরুষদের বেশি বিব্রত করে। বর্তমানে এ ওষুধটি বেশি শক্তিসম্পন্ন ৫% হিসেবেও বাজারজাত হচ্ছে। বাজারে ফিনেসটেরাইড (FINASTERIDE) নামে আরো একটি ওষুধ পাওয়া যায়, যেটা মূলত চুল পড়া প্রতিরোধ করে। তাই যার মাথায় এখনো যথেষ্ট চুল আছে তার জন্য এটা ভালো ওষুধ হতে পারে। বয়স্ক মহিলারা এ ওষুধটি ব্যবহার করতে পারলেও গর্ভবতী মায়েদের জন্য এটা নিরাপদ নয়।
    বর্তমানে অত্যন্ত সফলভাবে হেয়ার ট্রান্সপ্লান্ট করা হচ্ছে। এ ক্ষেত্রে মাথার পেছন থেকে চুল নিয়ে সামনে বসিয়ে দেয়া হয়। অপারেশনের মাধ্যমে টাক অংশের চামড়া ফেলে দিয়ে চুলযুক্ত অংশ জোড়া লাগানোর ঘটনাও এখন বিরল নয়। হেয়ার ট্রান্সপ্লান্টের পর রোগীকে ফিনেসটেরাইড খেতে দেয়া হয় যাতে নতুন লাগানো চুল ঝরে না পড়ে। কৃত্রিম চুল কিংবা অন্য লোকের চুল টাক মাথায় বপন করেও বর্তমানে টাক সমস্যা সমাধান করা হচ্ছে।

    নিচের লিঙ্কে আরো বিস্তারিত পাবেনঃ

    http://www.somewhereinblog.net/blog/jannat007blog/28739302

    এবং আরো জানতে চাইলেঃ

    http://www.prothom-alo.com/detail/date/2010-06-08/news/69246

    http://bangla.irib.ir/2010-04-21-07-49-31/2010-04-22-08-10-35/item/1401-%E0%A6%9A%E0%A7%81%E0%A6%B2-%E0%A6%AA%E0%A7%9C%E0%A6%BE

    http://www.kalerkantho.com/?view=details&archiev=yes&arch_date=26-01-2010&feature=yes&type=gold&data=Car&pub_no=57&cat_id=3&menu_id=70&news_type_id=1&index=15

    Sign in to Reply
    Replying as hasanrang05 Submit
    0

    মাথার তালু ও চুলের গোড়া ঘাম/ধুলাবালি মুক্ত পরিস্কার রাখতে সুইটেবল শ্যাম্পু দিয়ে প্রত্যেকদিন শ্যাম্পু করতে হবে। চিরুণী ঝকঝকে পরিস্কার হওয়া বাঞ্জনীয়। লেবুর রস খুশকী দূর করে। শ্যাম্পু করার পর এক মগ পানিতে একটা লেবুর রস মিশিয়ে সেই পানি দিয়ে মাথা ধুয়ে ফেলুন। পানি খাওয়ার পরিমাণ বাড়ায় দেন। লম্বা ঘুম দেন।

    Sign in to Reply
    Replying as hasanrang05 Submit
    0

    চুল পড়া বন্ধে বিউটি পার্লারে চিকিৎসা নেয়ার চেয়ে প্রাকৃতিক উপাদান ব্যবহার বেশি কার্যকর। কেননা পার্লারে নেয়া চিকিৎসা পদ্ধতি দ্বারা চুল পড়া সম্পূর্ণ বন্ধ করা সম্ভব নয়। তবে নিচে দেয়া সহজলভ্য কিছু পরামর্শের মাধ্যমে ঘরে বসে চুল পড়া রোধ করা যায়।





    ১. হালকা গরম তেল ব্যবহার। যে কোন প্রাকৃতিক তেল যেমন-জলপাই, নারিকেল তেল, কেনোলা তেল (বীজ জাতীয় উপাদান দিয়ে তৈরি) হালকা গরম করে নিন। এরপর তেলের সঙ্গে হালকা পানি মিশিয়ে তালুতে ধীরে ধীরে মেসেজ করুন। একঘণ্টা মাথায় রেখে শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন।





    ২. প্রাকৃতিক রস ব্যবহার। চুল পড়া রোধে রসুনের রস, পেয়াজ বা আদার রস মাথার তালুতে মাখুন। রাত্রে তা মাথায় দিয়ে ঘুমিয়ে থাকুন। সকালে ভালভাবে পরিষ্কার করে ফেলুন।





    ৩. মাথা মেসেজ করা। প্রতিদিন ২ থেকে ৩ মিনিট মাথার তালু মেসেজ করলে তা চুলের ফলিকল সক্রিয় রাখে। এর সঙ্গে ল্যাভেন্ডার বা বাদাম জাতীয় তেল মেখে মাথায় দিলে তালুর ফলিকলের সক্রিয়তা বাড়ে।





    ৪. এন্টিঅক্সিডেন্টের ব্যবহার। মাথার তালুতে হালকা সবুজ চা প্রয়োগ করে একঘণ্টা পর্যন্ত রাখুন। তারপর পানি দিয়ে চুল কিছুক্ষণ কচলান। সবুজ চাতে প্রচুর এন্টিঅক্সিডেন্ট রয়েছে যা চুল পড়া বন্ধ করে এবং চুলের বৃদ্ধি ঘটায়।

    Sign in to Reply
    Replying as hasanrang05 Submit
    0

    নিচের সাহায্যে আপনার চুল পরা বন্ধ হতে পারে ।

    হেড প্যাক

    চুল কালার করার পর এই প্যাক করা ভালো । পাকা চুলের জন্য বেশি উপকারি । এই প্যাক চুল পরা বন্ধ করে । সপ্তাহে একদিন করে এই প্যাক করা ভালো ।

    যা লাগবেঃ মেহেদী গুড়া (চুল বুঝে), খয়ের গুড়া এক টেবিল চামচ, ডিম একটি, টকদই এক টেবিল চামচ, চা পাতা বা কফির লিকারের পানি পরিমান মতো, যাদের চুল পরে তাদের ক্ষেত্রে আমলকি গুড়া অথবা আমলকির রস । আমলকির গুড়া হলে চার টেবিল চামচ আর আমলকির রসের ক্ষেত্রে হাফ কাপ । চা পাতা বাটা পরিমান মতো ।

    নিয়মাবলীঃ এবার সকল উপকরন এক সাথে মিশিয়ে প্যাক তৈরী করবো । তৈরী প্যাক মাথায় ১ ঘন্টা রেখে শ্যাম্পু করে ধুয়ে নেব ।

    Sign in to Reply
    Replying as hasanrang05 Submit