চুল পড়া কিভাবে বন্ধ করা যায় ?

Please check these topics first.

    Administrator Member Since Oct 2016
    Flag(0)
    Nov 17, 2012 02:53 PM 2 Answers
    Subscribe

    আমার মাথা থেকে প্রচুর পরিমাণে চুল পরতেছে । আর তার জন্য আমি আমার এক ডাক্তার বন্থুর পরামর্শে ইকেপ টেবলেট খাই । এতে চুলপরা কিছুটা কমে , তবে ইকেপ না খেলে আবার বেশি করে পরে । আর ডাক্তার বলছে যে ইকেপ টেবলেট নাকি বেশি দিন খাওয়া উচিত না । তাই ২-৩ মাস খাওয়ার পর আর খেতে ও পারতেছিনা । এখন চুল বেশি করে পরতেছে এমতাবষ্তায় আমি কি করতে পারি ? উত্তর দিলে খুশি হবো।

    1 Subscribers
    Submit Answer
    Please login to submit answer.

    2 Answers
    Sort By:
    Best Answer
    0
    AnswersBD Administrator Apr 24, 2014 07:28 PM
    Flag(0)

    আপনি হ্যাভেন হারবাল হেয়ার ট্রিটিমেন্ট ব্যাবহার করে দেখতে পারেন। আমারও পরিচিত অনেককে েরও ব্যাবহার এবং রেজাল্ট পেতে দেখেছি,।

    Sign in to Reply
    Replying as Submit
    Best Answer
    0
    AnswersBD Administrator Nov 17, 2012 10:34 PM
    Flag(0)

    ১। শীত গ্রীস্ম যাই হোক না কেন মনে রাখবেন চুলের গোড়ায় কখন পানি জমতে দিবেন না ! দেখা গেছে যাদের মাথা বেশী ঘামে তাদের চুল পড়ার সংখাও বেশি ! যদি চুল এর গোড়া ঘেমে যায় তবে তা তাড়াতাড়ি শুখিয়ে ফেলাই ভাল ! তাছাড়া এর গোড়ায় ছত্রাক ও ব্যক্টেরিয়ার আক্রমনে খুসকি হুতে পারে !খুস্কি হলেই চুল পড়ার পরিমান অনেক বেড়ে যাবে ! তবে দিনে ১০০ টার কম চুল পড়লে সেটাকে মেনে নিতেই হবে ! ১০০ এর বেশি চুল পড়লে চুলের যত্ন যত দ্রুত নেয়া যেতে পাড়ে ততই মঙ্গল !

    ২।চুলে স্যম্পু করার সবচেয়ে ভাল পদ্ধতি হল একদিন পর পর স্যম্পু করা ! তবে মনে রাখবেন স্যম্পু এর ধরন দেখে চুলে তা ব্যবহার করবেন ! আমি ব্যক্তিগত ভাবে dove স্যম্পু ব্যবহার করি ! যা চুলের জন্যে ভালই ! তবে আমার ভাল লাগে প্যন্টিন স্যাম্পু ব্যবহার করতে ! তবে অনেকের কাছেই অভিযোগ শুনেছি এটাতে তাদের চুল পড়ে এবং হাল্কা হয়ে যায় ! এবং তাই হয়েছে ! তাই প্যান্টিন স্যম্পু ব্যবহার করার সবচেয়ে ভাল পদ্ধতি হল স্পেশাল কোন দিনে ব্যবহার করা যেমন ধরুন ঈদ এর দিনে সকালে, ভ্যলেন্টাইন্স দিনে ! তবে একধারে ব্যবহার না করাই ভাল ! যেহেতু আমার এই টপিকটি সম্পুর্ন অভিজ্ঞতা থেকে তাই কারন আমি বলতে পারছি না !

    ৩।আপনি কখন বুঝবেন আপনার চুলে গোড়ায় ছত্রাক অথবা ব্যক্টেরিয়া আক্রমন করেছে ?? হুম … সম্ভবত আপনার মাথা চুল্কাবে … চুল মলিন হয়ে যাবে এবং পাতলা হয়ে যাবে এবং এর কয়েকদিন পড় থেকেই হয়তোবা আপনার চুল পড়া শুরু হবে !

    ৪। আপনাকে চুল পড়া বন্ধ করতে হলেই অবশ্যই নিজের গামছা , তোয়ালে আলদা করতে হবে [ছত্রাক এবং ব্যক্টেরিয়া থেকে মুক্ত থাকার জন্যে ] কারন অন্যের চুলের সমস্যা থাকলে তা যেকোন সময় আপনার মাথায় সংক্রামিত হতে পারে !
    সপ্তাহে একদিন নিজের বালিশের কভার ঠিকমত পরিষ্কার করতে হবে !

    ৫।চুল আচড়ানর সময় খেয়াল রাখতে হবে চিড়নীটি ঠিকমত পরিষ্কার কিনা ? পারলে স্যভলন দিয়ে পরিষ্কার করে নিন ! চুল কখন কখন জোড়ে জোড়ে আচড়াবেন না এতে চুলের গোড়ায় ক্ষতি হতে পারে ! যারা দোকানে চুল কাটেন [ছত্রাক ও ব্যক্টেরিয়া ] … তারা বাসায় এসে অবশ্যই ভাল মত স্যম্পু করবেন ।

    ৬।যাদের মাথা শুষ্ক তারা মাথায় কন্ডিশনার ব্যবহার করতে পারেন , যা আসলে বাংলার তেলের কাজ করে কিন্তু চুলের জন্যে অনেক উপযোগী ! তবে মাথা তেল তেল হলে , তা না ব্যবহার করাই ভাল এর থেকে দিনে প্রতিদিন ঠিকমত চুল পরিষ্কার করুন তাতেই হবে !

    ৭। বৃষ্টিতে মাথায় কিছু দিয়ে ঢাকার ব্যবস্থা করুন ! ভিজে গেলে তারাতারি শুকিয়ে ফেলুন ! ওয়াটার কিংডম …এইসব পানি থেকে ১০০ হাত দূরে থাকুন ! যদি নিজের চুলের প্রতি নূন্যতম ভালোবাসা থাকে তাহলে এর থেকে বাসার বাথরুমে পানি নিয়ে লাফালাফি করুন !

    ৮।রাতে ঘুমান ! যদি তা না পারেন শরীরটাকে একটু বিশ্রাম দিন ! কারন ঠিকমত না ঘুমালে চুল পড়া বেড়ে যাবে ! আর যদি রাত জাগতেই হয় তবে সকালে ঘুমানোর আগে গোসল করে ঘুমান ! কারন এত চুলে ছত্রাক ও ব্যক্টেরিয়া সঙ্ক্রামন হবে না [সাধারন্ত যারা রাত জাগে বিশেষ করে ছেলেরা … নিজের বিছানা , পোষাক এর প্রতি যত্নশীল হোন না আর তাতে বিছানায় বালিশে ছত্রাক আর ব্যক্টেরিয়া ! বসে বসে নাচে]

    ৯। যারা হেয়ার ড্রেয়ার ব্যবহার করেন না (যেমন আমি । হয়তোবা প্রত্যক ছেলেই হেয়ার ড্রেয়ার মেয়েদের বস্তু মনে করেন) তারা চুল তাড়াতাড়ি শুকানোর জনে টিস্যু পেপার ব্যবহার করতে পারেন ! কারন আমি কখনই গামছাকে বিশ্বাস করতে পারি না যে ওতে ছত্রাক অথবা ব্যক্টেরিয়া নাই

    ১০।হুম … তারপরও মাথার চুল পড়ে যাচ্ছে ! এবার তাদের মাথাত চুলের ডুমসডেয় । মানে চুল আপনাকে কাটতে হবেই ! কেটে ফেলুন হয়ে যান টাকলু ! এক প্যকেট A-Z ভিটামিন এর টাব্লেট নিন (ডাক্তার এর পরামর্শ অনুযায়ী) ।। এর পর খেতে থাকুন পুর এক মাস ! তারপর আবার ১ থেকে শুরু করুন … আশা করি এইবার সৃষ্টকর্তা আপনাকে নিরাশ করবেন না !

    source: http://forum.projanmo.com/topic19159.html

    Sign in to Reply
    Replying as Submit